বৃহস্পতিবার | ৯ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ | ২৬শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম

আপত্তিকর ছবি ভাইরাল হওয়ায় কলেজ ছাত্রীর আত্মহত্যা

প্রকাশিত : এপ্রিল ১৬, ২০২২




জার্নাল সারাদেশ বার্তা ॥ নড়াইলের লোহাগড়ায় কলেজ ছাত্রীর আপত্তিকর ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়ার ঘটনায় লোকলজ্জা ও ক্ষোভে-অপমানে জান্নাতুল ফেরদৌস বর্ষা (১৯) নামে একজন কলেজ ছাত্রী গত শুক্রবার বিকালে নিজ বাড়িতে ফ্যানের হুকের সাথে ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছে ।

আত্মহত্যাকারী জান্নাতুল ফেরদৌস বর্ষা উপজেলার দিঘলিয়া ইউনিয়নের মাইগ্রামের বাচ্চু মিয়ার মেয়ে এবং খুলনা বয়রা সরকারি মহিলা কলেজ থেকে এ বছর এইচএসসি পাশ করেছে। সংবাদ পেয়ে লোহাগড়া থানা পুলিশ রাতেই লাশ উদ্ধার করে শনিবার সকালে ময়না তদন্তের জন্য নড়াইল সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরন করেছে ।

আতœহননকারী বর্ষার চাচাতো ভাই এ্যাডঃ এস এম আল মামুন সাংবাদিকদের জানান, লোহাগড়া উপজেলার মল্লিকপুর ইউপির পাঁচুড়িয়া গ্রামের শহিদুল থান্দারের ছেলে বর্ষার খালাতো ভাই তাশরিফ থান্দারের সাথে মোবাইলের মাধ্যমে বর্ষার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এক পর্যায়ে উভয়ের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক আপত্তিকর পর্যায়ে পৌছায়। প্রেমিক তাশরিফ গোপনে তার আপত্তিকর ছবি মোবাইলে ধারণ করে বিভিন্ন সময় অনৈতিক মেলামেশার প্রস্তাব দেয়। প্রস্তাবে বর্ষা রাজী না হওয়ায় তাশরিফ তার কাছে থাকা আপত্তিকর ছবি বর্ষা এবং তার বান্ধবী খুলনার চন্দনী মহল এলাকার কুলসুমের মোবাইলে পাঠিয়ে দেয়।

গত কয়েকদিন পূর্বে ওই ছবি বান্ধবী কুলসুম নিহত বর্ষার ভাই দাউদ শেখের মোবাইলে পাঠিয়ে দেয়। ছবির বিষয়টি পরিবার ও আত্মীয় স্বজনদের মধ্যে জানাজানি হয়ে যায়। এক পর্যায়ে বর্ষার মা বর্ষার মোবাইল ফোন চেক করে আপত্তিকর ছবি দেখতে পেয়ে মেয়েকে বকাঝকা ও গালিগালাজ করে। এ দিকে প্রেমিক তাশরিফের মা বর্ষাদের বাড়ীতে যেয়ে তাকেসহ পরিবারের লোকজনকে বকাঝকা করে সাশিয়ে আসে।

এক পর্যায়ে আপত্তিকর ছবি পরিবার, আত্মীয়স্বজন ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে এবং গ্রামবাসীসহ এলাকার সর্বসাধারনের মধ্যে জানাজানি হয়ে যায়। এ ঘটনায় ওই ছাত্রী লোক-লজ্জা ও ক্ষোভে দুঃখে শুক্রবার বিকালে পরিবারের সদস্যদের অজান্তে বাড়ীর নির্মানাধীন ভবনের সিলিং ফ্যানের রডের সাতে গলায় ওড়না পেছিয়ে আত্মহত্যা করে।

লোহাগড়া থানার ওসি শেখ আবু হেনা মিলন জানান, শনিবার সকালে লাশ ময়না তদন্তের জন্য নড়াইল সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। আতœহত্যার ঘটনায় ভুক্তভোগীরা লোহাগড়া থানায় আত্মহত্যা প্ররোচনার অভিযোগে মামলা দায়ের করেছেন। আসামীদের আটকের জোর চেষ্টা চলছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

আজকের সর্বশেষ সব খবর