মঙ্গলবার | ৩১শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ | ১৭ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম

ঈদের জামাতের জন্য প্রস্তুত জাতীয় ঈদগাহ

প্রকাশিত : জুলাই ৯, ২০২২




জার্নাল ডেস্ক ॥ রাজধানীর মুসল্লিদের ঈদের নামাজ আদায়ের জন্য প্রস্তুত করা হয়েছে জাতীয় ঈদগাহ মাঠ। এই মাঠে একসঙ্গে প্রায় ৩৫ হাজার মুসল্লি ঈদের নামাজ আদায় করতে পারবেন। এছাড়া নারীদের জন্যও রয়েছে বিশেষ ব্যবস্থা। যাতে প্রায় পাঁচ হাজার নারী নামাজ আদায় করতে পারবেন।

প্রতি বছর ঈদের মতো এবারও জাতীয় ঈদগাহ ময়দানে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হবে। সে লক্ষ্যে মাঠ প্রস্তুতির কাজ সম্পন্ন হয়েছে। শনিবার (৯ জুলাই) সকালে সরেজমিন দেখা গেছে, জাতীয় ঈদগাহ মাঠের প্রায় শতভাগ কাজ শেষ হয়েছে।

ঈদগাহ মাঠ ঘুরে দেখা গেছে, নামাজের জন্য মাঠে প্যান্ডেলর ওপরে দুই লাখ ৭০ হাজার ২৭৭ বর্গফুট এলাকায় বৃষ্টি প্রতিরোধক ত্রিপল দিয়ে ছাদ বানানো হয়েছে। নিরাপত্তা সরঞ্জাম স্থাপনের কাজ তদারকি করছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) ও অন্যান্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। প্যান্ডেলে ফ্যান ও লাইট লাগানোর পাশাপাশি নিরাপত্তার জন্য সিসিটিভি ক্যামেরা বসানোর কাজও শেষ।

এবারের ঈদের নামাজের মূল ইমাম হাফেজ মাওলানা মুফতি রুহুল আমিন, খতিব, বায়তুল মোকাররম, বিকল্প ইমাম-মাওলানা সৈয়দ ওয়াহিদুজ্জামান, মুহতামিম, জামেয়া আরাবিয়া মিরপুর এবং ক্বারী-ক্বারী মাওলানা হাবিবুর রহমান মেশকাত, মুয়াজ্জিন, বায়তুল মোকাররম।

ঈদগাহের বাইরে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কয়েকটি ওয়াচ টাওয়ার স্থাপন করা হয়েছে। মূল গেটের কাজ শেষ। মেডিক্যাল ক্যাম্প ও নিরাপত্তা ক্যাম্প তৈরি হয়েছে। সামনের মিনারের কাজও সম্পন্ন হয়েছে। মুসুল্লিদের নামাজ আদায়ের জন্য মূল প্যান্ডেলের ভেতরে জায়নামাজ বিছানোর কাজ চলছে দ্রুতগতিতে। বিকেলের মধ্যে সেই কাজও শেষ হয়ে যাবে বলে জানিয়েছে ডেকোরেটরের ম্যানেজার।

জাতীয় এই ঈদগাহ মাঠের সার্বিক ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে রয়েছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)। ডেকোরেটরসহ অন্যান্য কাজ করছে সরদার অ্যান্ড সন্স ডেকোরেটর সার্ভিস। প্রতিষ্ঠানটির কর্ণধার মোজাম্মেল হক জানান, ঈদ মাঠের কাজ শেষ। বাকি কাজ আজ (শনিবার) বিকেলের মধ্যে শেষ হবে। আজ বিকালের পর কোনো কাজ বাকি থাকবে না।

এদিকে, জাতীয় ঈদগাহে যেন মুসুল্লিরা নিরাপদে নামাজ পড়ে ফিরে যেতে পারেন, সে কারণে পুরো ঈদগাহ এলাকাজুড়ে নিরাপত্তার দায়িত্বে আছে ঢাকা মহানগর পুলিশ ও র‌্যাব। শনিবার আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর অনেক সদস্যকে ইদগাহ এলাকায় অবস্থান করতে দেখা গেছে।

তারা জানান, ঈদগাহের চারদিকে টহল গাড়ি ও বেশ কিছু ওয়াচ টাওয়ার রয়েছে। পুলিশ-র‌্যাবের পাশাপাশি আরও কিছু বাহিনী আজ সন্ধ্যা থেকে কাজ শুরু করবে। থাকবে সাদা পোশাকধারী বিভিন্ন সংস্থার সদস্যরা। প্রতি বছরের মতো ডগ স্কোয়াড ও সোয়াত টিমও থাকার কথা রয়েছে।

এদিকে, সকাল দশটার পরে র‍্যাবের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (অপারেশন্স) কর্নেল কামরুল হানান জাতীয় ঈদগাহের নিরাপত্তা ব্যবস্থা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন।

অপরদিকে, সকালে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস জাতীয় ঈদগাহ ময়দানের সার্বিক কাজের অগ্রগতি দেখে সন্তোষ প্রকাশ করেন।

আজকের সর্বশেষ সব খবর