রবিবার | ২৯শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম

কাল থেকে শুরু এসএসসি-সমমানের পরীক্ষা

প্রকাশিত : নভেম্বর ১৩, ২০২১




জার্নাল ডেস্ক ॥ আগামীকাল রোববার (১৪ নভেম্বর) শুরু হচ্ছে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা। সকাল-বিকাল দুই শিফটে এ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষা শেষ হবে আগামী ২৩ নভেম্বর। ২০২১ সালের শিক্ষার্থীদের এই পরীক্ষায় অংশ নেবে মোট ২২ লাখ ২৭ হাজার ১১৩ জন। এরমধ্যে এসএসসিতে ১৮ লাখ ৯৯৮ জন, দাখিলে তিন লাখ এক হাজার ৮৮৭ জন এবং ভোকেশনালে এক লাখ ২৪ হাজার ২২৮ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে।

গত বছরের তুলনায় এবছর পরীক্ষার্থী বেড়েছে এক লাখ ৭৯ হাজার ৩৩৪ জন। পরীক্ষার্থী বাড়ার হার ৮ দশমিক ৭৬ শতাংশ। প্রতিষ্ঠান বেড়েছে ১৫১টি এবং কেন্দ্র বেড়েছে ১৬৭টি।

পরীক্ষা উপলক্ষে গত ২৭ অক্টোবর সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলনে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি জানিয়েছেন, করোনা মহামারির মধ্যে প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা নেওয়া ৩০ দিনের মধ্যে ফল প্রকাশ করা হবে।

মহামারির মধ্যে অনুষ্ঠিত এই পরীক্ষার সময়ে কেউ করোনা আক্রান্ত হলে হাসপাতাল থেকে পরীক্ষা দিতে পারবে বলেও জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার জন্য শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসহ সংশ্লিষ্টদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

সকালের পরীক্ষা ১০টা থেকে সাড়ে ১১টা এবং বিকেলের পরীক্ষা বেলা ২টা থেকে সাড়ে ৩টা পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষার নির্দেশনায় বলা হয়েছে, কোভিড-১৯ মহামারির কারণে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগে কক্ষে আসন গ্রহণ করতে হবে।

মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, স্বাস্থ্যবিধি ঠিক রাখতে বিজ্ঞান, মানবিক ও ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের শিক্ষার্থীদের একই সময়ে পরীক্ষা না নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন সময়ে অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষার সময় ও নম্বর কমিয়ে আনা হয়েছে।

ব্যবহারিক পরীক্ষার বিষয়ে বলা হয়, স্ব স্ব প্রতিষ্ঠান নিজ নিজ পরীক্ষার্থীর ব্যবহারিক খাতার নম্বর দিয়ে ২৮ নভেম্বরের মধ্যে সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রকে সরবরাহ করবে।

সাধারণ বোর্ডের তত্ত্বীয় পরীক্ষা হবে ১৪ থেকে ২৩ নভেম্বর পর্যন্ত। এছাড়া মাদরাসা ও ভোকেশনালের পরীক্ষা হবে ১৪ থেকে ২১ নভেম্বর।

পরীক্ষাচলাকালীন সোশ্যাল মিডিয়া গুজব নিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, যারাই এ ধরনের গুজবের সঙ্গে জড়িত থাকবে কিংবা প্রশ্ন ফাঁসের চেষ্টার সঙ্গে জড়িত থাকলে গোয়েন্দা সংস্থা তীক্ষ্ণ নজরদারি করছে। যারা জড়িত থাকবে তাদের বিরুদ্ধে কঠিন ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পরীক্ষা সংক্রান্ত নির্দেশনায় বলা আছে, সংশ্লিষ্ট শিক্ষা বোর্ড তাদের নির্ধারিত কেন্দ্রগুলোর সঙ্গে সার্বক্ষণিক অনলাইনে যোগাযোগ রক্ষা এবং তথ্য আদান প্রদান করবে।

পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে ৮ থেকে ২৫ নভেম্বর পর্যন্ত সব কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে সরকার।

আজকের সর্বশেষ সব খবর