মঙ্গলবার | ৭ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২২শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম

পরীমনিকে ধর্ষণচেষ্টা: বোট ক্লাবের ভেতরে দেড় ঘণ্টা কী হয়েছিল?

প্রকাশিত : জুন ১৭, ২০২১




বিনোদন ডেস্ক ॥ হঠাৎ বিদ্যুৎ বন্ধ। ঢাকা বোট ক্লাবের বারজুড়ে অন্ধকার। অশোভনীয় গালিগালাজ। পুরুষ ও নারী কণ্ঠ। এরমধ্যেই ঠাসঠাস শব্দ। যেনো কেউ কারো গায়ে হাত তুলছে। ব্যথা পেয়ে শব্দ করছে কেউ। বেশ কয়েক মিনিট এভাবেই মারধরের ঘটনা ঘটে। যখন বিদ্যুৎ আসে তখন প্রায় অচেতন চিত্রনায়িকা পরীমনি। এক পর্যায়ে কস্টিউম ডিজাইনার জিমি ও ক্লাবের নিরাপত্তাকর্মীর সহযোগিতায় বের করা হয় পরীমনিকে। এভাবেই ৯ই জুন রাতে ঢাকার সাভারের বিরুলিয়ার ঢাকা বোট ক্লাবে ঘটে যাওয়া ঘটনার বর্ণনা দিয়েছেন প্রত্যক্ষদর্শীরা।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন সদস্য জানান, রাত ১২টার দিকে তিনি দেখেছেন ক্লাবের নির্বাহী কমিটির সদস্য (বর্তমানে বহিষ্কৃত) নাসির উদ্দিন মাহমুদ, পরীমনি ও তাদের সঙ্গীরা বসে আছেন। তার প্রায় আধা ঘণ্টার মধ্যেই এই ঘটনা ঘটে। এই ঘটনার শেষে পরীমনিকে বেশ অসুস্থ দেখা যাচ্ছিলো। তার গাল দুটি লাল হয়ে ছিল। এক পর্যায়ে ক্লাব থেকে বের হন নাসির উদ্দিন মাহমুদ। ওই রাতে বাইরে যারা দায়িত্ব পালন করেছেন তারা কেউ এ বিষয়ে কথা বলতে চাননি।

তবে সংশ্লিষ্ট একটি সূত্রমতে, পরীমনি যখন ক্লাবে যান তখন নাসির উদ্দিন মাহমুদকে কল দেন পরীমনির সঙ্গে থাকা অমি। কিছুক্ষণের মধ্যে নাসির উদ্দিন মাহমুদ এসে তাদের নিচতলার রেস্টুরেন্ট হয়ে দ্বিতীয় তলায় বারে নিয়ে যান। সে রাতে ঘটনার পাঁচদিন পর নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও অমিকে আসামি করে ধর্ষণচেষ্টা ও মারধরের অভিযোগে সাভার থানায় মামলা করেন পরীমনি।

তার আগে ফেসবুকে এ বিষয়ে একটি স্ট্যাটাস দেন তিনি। মামলা দায়েরের পর গ্রেপ্তার করা হয় নাসির উদ্দিন মাহমুদ, অমিসহ পাঁচজনকে। বর্তমানে তাদের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। তাদের সঙ্গে তিন দিনের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে তিনজন নারী সঙ্গীকেও। পুলিশ তাদের অমি ও নাসিরের ‘রক্ষিতা’ বলে দাবি করেছে।

ঘটনা তদন্তে এরইমধ্যে গোয়েন্দারা বোট ক্লাব ও বনানী থানা থেকে কিছু সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করেছেন। এসব ফুটেজ বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, বোট ক্লাবের রিসিপশন দিয়ে ক্লাবের বারে প্রবেশ করে অচেতন অবস্থায় বের হওয়া পর্যন্ত মোট ৯৭ মিনিট পরীমনি ও তার সঙ্গীরা ক্লাবের ভেতরে অবস্থান করেছেন। ১২টা ২২ মিনিটে স্বাভাবিকভাবেই পরীমনি ও তার সঙ্গীরা বারে প্রবেশ করেন। কিন্তু ১টা ৫৯ মিনিটে পরীমণিকে কোলে করে বের করা হয়। দীর্ঘ এই সময় সেখানে কি হয়েছিল সেটি নিয়েই প্রশ্ন সর্বত্র।

ফুটেজে দেখা যায়, ৯ই জুন বুধবার রাত ১২টা ২২ মিনিট। বোট ক্লাব ভবনের চেকপোস্টে এসে থামে একটি কালো রঙের গাড়ি। নিরাপত্তাকর্মীরা গাড়িটিকে উদ্দেশ্য করে সালাম দিয়ে সামনে এগিয়ে আসেন। তখন কালো গাড়ির পেছনে সাদা রঙের আরেকটি গাড়ি এসে থামে। কালো গাড়ির সামনের বাম পাশের দরজা খুলে বের হয়ে আসেন চিত্রনায়িকা পরীমনি। তার মুখে ছিল সাদা মাস্ক। পরনে কালো টপস ও নীল জিন্স প্যান্ট। পেছনের ডান পাশের দরজা খুলে বের হন তুহিন সিদ্দিকী অমি ও পরীমনির কস্টিউম ডিজাইনার জিমি। জিমির পরনে ছিল কালো হাতাকাটা গেঞ্জি ও হাফ প্যান্ট। অমির পরনে ছিল সাদা গেঞ্জি ও প্যান্ট। পরীমনি নিজে পেছনের দরজা খুলে বের করে নিয়ে আসেন তার ছোট বোন বনিকে। তার পরনে ছিল লাল টপস ও জিন্স প্যান্ট। সাদা গাড়ি থেকে বের হন মাস্ক পরা আরো দুজন। তাদেরকে নামিয়ে দিয়ে ১২টা ২৩ মিনিটে দুটি গাড়ি ক্লাব ভবনের সামনে থেকে বেরিয়ে যায়। পরে অমি মোবাইল ফোনে কারও সঙ্গে একজন নিরাপত্তাকর্মীর কথা বলিয়ে দিয়ে ভেতরে প্রবেশ করেন।

১২টা ২৩ মিনিট ৩৬ সেকেন্ডে পরীমনি, তার বোন বনি, অমি ও জিমি রিসিপশন দিয়ে বারে প্রবেশ করেন। এ সময় রিসিপশনের ডেস্কে দুজন ও সামনে আরেকজন উপস্থিত ছিলেন। প্রায় ৯৭ মিনিট পর রাত ১টা ৫৯ মিনিটে জিমি ও ক্লাবের একজন নিরাপত্তাকর্মী পরীমনিকে অচেতন অবস্থায় কোলে নিয়ে রিসিপশন দিয়ে বাইরে বের হয়ে যান। তাদের পেছন পেছন দৌড়াচ্ছিলেন পরীমনির বোন বনি। তার কয়েক সেকেন্ড পরে স্বাভাবিকভাবেই বার থেকে বের হয়ে যান অমি। সেখানে আগে থেকেই সাদা রঙের একটি গাড়ি দাঁড়ানো ছিল। পরীমনিকে কোলে নিয়ে বের হওয়া দেখে নিরাপত্তাকর্মীরা দৌঁড়ে গিয়ে গাড়ির সামনের ও পেছনের দরজা খুলে দেন। জিমি ও ওই নিরাপত্তাকর্মী পরীমনিকে সাদা গাড়ির সামনের সিটে নিয়ে বসান। পরে গাড়ির পেছনের সিটে জিমি ও বনি ওঠার পরপরই গাড়িটি ক্লাব থেকে বের হয়ে যায়। রাত ২টার দিকে গাড়িটি ক্লাব থেকে বের হওয়ার সময় অমিকে গাড়ির কাছে এসে কিছু বলতে দেখা গেছে।

এদিকে বনানী থানার বাইরের সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজে দেখা যায়, রাত ৩টা ৫২ মিনিটে বনানী থানায় প্রবেশ করেন পরীমনি। প্রথমে তারা ডিউটি অফিসারের রুম হয়ে থানার ভেতরে প্রবেশ করেন। পরে একজন অফিসার তাদের ডিউটি অফিসারের কাছে যেতে বলেন। পরীমনি ডিউটি অফিসারের রুমে গিয়ে তার বরাবর চেয়ারে বসেন এবং ঘটনার বর্ণনা দেন। তবে ডিউটি অফিসার তার কথা বুঝতে পারছিলেন না। পরে তাকে পুলিশের একটি গাড়িতে এভারকেয়ার হাসপাতালে পাঠানো হয়।

বোট ক্লাবের ওই ঘটনায় পরীমনির সঙ্গে থাকা কস্টিউম ডিজাইনার জিমি বিতণ্ডার সময়ের ১৫ সেকেন্ডের একটি ভিডিও করেছিলেন। সেই ভিডিওতে চিৎকার-চেঁচামেচির সময়ে নাসির ইউ মাহমুদকে বলতে শোনা যায়, ‘অমি তুমি এগুলাকে আর ক্লাবে আনবা না।’

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, পরীমনি সাভার থানায় দায়ের করা মামলায় বলেছেন, সেই রাতে পূর্ব পরিচিত অমিসহ কয়েকজন পরিকল্পিতভাবে দুই মিনিটের কাজ আছে বলে পরীমনিকে ঢাকা বোট ক্লাবের সামনে নিয়ে যান। সেখানে তারা গাড়িতে অপেক্ষা করেন। ছোট বোন বনির প্রকৃতির ডাকে সাড়া দেওয়ায় তারা বারের পাশের একটি টয়লেট ব্যবহার করতে ভেতরে প্রবেশ করেন। কিন্তু ঢাকা বোট ক্লাবের প্রবেশ পথ ও অভ্যর্থনা কক্ষে থাকা সিসিটিভি ফুটেজে দেখা গেছে, বোট ক্লাবের সামনে গাড়ি এসে থামার সঙ্গে সঙ্গেই স্বাভাবিকভাবেই পরীমণি ও তার সঙ্গীরা ক্লাবের ভেতরে প্রবেশ করেন।

ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের একজন কর্মকর্তা বলছেন, রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদে অমি বলেছেন তারা ক্লাবের ভেতরে গিয়ে নাসির ইউ মাহমুদসহ একসঙ্গে মদ পান করেন। শেষে একটি বোতল নেওয়া নিয়ে প্রথমে একজন কর্মচারীর সঙ্গে পরীমনি বিতণ্ডা করেন। সেই বিতণ্ডায় যোগ দেন নাসির ইউ মাহমুদসহ আরো কয়েকজন।

ঢাকা বোট ক্লাবে যাওয়ার আগে পরীমনির বনানীর বাসায় বসেই এক বোতল মদ পান করেন তারা সবাই। এসময় বাসাতে নাট্যপরিচালক চয়নিকা চৌধুরীও ছিল বলে পুলিশকে জানিয়েছেন অমি। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, বছর দুয়েক আগের পরিচয় সূত্র ধরে অমির সঙ্গে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক হয়েছে পরীমণির। দক্ষিণখানে তার বিশাল একটি বাগান বাড়িও রয়েছে।

গোয়েন্দা পুলিশের কাছে অমি স্বীকার করেছেন, মদ্যপ অবস্থায় নাসির ইউ মাহমুদ পরীমনিকে কয়েকটি চড় দিয়েছিলেন। এসময় মেঝেতে পড়ে যান পরীমণি। মদ্যপ থাকায় পরীমণিকে তারা ধরাধরি করে গাড়িতে এনে তোলেন। তিনি দুই পক্ষকেই ঠাণ্ডা করার চেষ্টা করেছেন। ঘটনার পর পরীমণিকে একাধিক ক্ষুদেবার্তাও পাঠানো হয়। তবে জিজ্ঞাসাবাদে চড় দেওয়ার কথা অস্বীকার করেছেন নাসির ইউ মাহমুদ।

মামলার এজাহারে পরীমনি অভিযোগ করেন, বোট ক্লাবে বারের টয়লেট ব্যবহার শেষে নাসির তাকে কফি খাওয়ার অফার করেন। বিষয়টি এড়িয়ে গেলে নাসির মদের বোতল তার মুখে ঠেসে ধরেন। এতে তিনি দাঁত ও ঠোটে ব্যথা পান। তদন্ত সংশ্লিষ্ট একজন কর্মকর্তা জানান, তদন্ত কর্মকর্তা ঘটনার বিষয়ে বিস্তারিত জানতে পরীমনির সঙ্গে কথা বলবেন। এমনকি আলাদা আলাদা করে তার সঙ্গীদের সঙ্গেও কথা বলা হবে।


এদিকে এজাহার দায়েরের আগে বাসায় সংবাদ সম্মেলন ও গোয়েন্দা কার্যালয়ে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে পরীমনি বলেছেন, তাকে পানীয়র সঙ্গে জোর করে কিছু খাওয়ানো হয়েছিল। যাতে তার গলা ও বুক জ্বলছিল। সেটির কারণেই ঘটনার দিন রাতে বনানী থানায় গিয়ে তিনি অসংলগ্ন আচরণ করেছিলেন।

এ নিয়ে প্রশ্ন করা হলে পরীমনি বলেন, ‘আমি কি মদ খেতে বোট ক্লাবে গিয়েছিলাম? এটা কি বিশ্বাসযোগ্য? আমাকে মদের সঙ্গে কিছু একটা খাওয়ানো হয়েছিল। আমি তখন মরে যাচ্ছিলাম। সেটি জানানোর জন্যই আমি থানায় গিয়েছিলাম। আমিই বলেছি আমাকে হসপিটালে নিয়ে যান।’ দুইদিন আগে মিন্টো রোডের গোয়েন্দা কার্যালয়ে এসব কথা বলেন পরীমণি।

মামলার তদন্ত তদারক কর্মকর্তা ঢাকা জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সাভার সার্কেল) আব্দুল্লাহিল কাফি বলেন, ‘আমরা প্রকৃত সত্য উদ্ঘাটনের জন্য যা যা করণীয় সবই করছি। সেই রাতে ক্লাবে কী ঘটেছিল, নিবিড়ভাবে তদন্ত করে আমরা সেই সত্য তুলে আনতে চাই। তদন্তে প্রাপ্ত তথ্য আমরা আদালতে জমা দেবো।’

বোট ক্লাবের ওই ঘটনার একদিন আগে গুলশানের অল কমিউনিটি ক্লাবে গিয়েও ভাঙচুর করেছিলেন বলে অভিযোগ উঠেছেপরীমনির বিরুদ্ধে। এদিন তার সঙ্গে সাবেক প্রেমিক তামিম হাসানও ছিলেন।

এই অভিযোগের প্রেক্ষিতে পরীমনি বলেছেন, ‘আমি যদি অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটিয়েই থাকি, তাহলে এতোদিন (৮ দিন) পর কেন সেটি মিডিয়ায় এলো? আমার সঙ্গে যেটা (ঢাকা বোট ক্লাবে নির্যাতন) হয়েছে, হওয়ার পরের চার দিন কিন্তু আমি বসে থাকিনি; সবাইকে জানানোর চেষ্টা করেছি। কিন্তু ওরা কী করেছেন? আমি যদি কোনও অপরাধ করে থাকি, তাহলে তারা কেন এতোদিন চুপ করে ছিলেন? আমি যখন অভিযোগ করলাম, তাদের (ঢাকা বোট ক্লাবে নির্যাতনে অভিযুক্ত নাসির ইউ মাহমুদ) বিষয়টি সামনে আনলাম; তখন তারা (অল কমিউনিটি ক্লাব) এটি নিয়ে কথা বলছে। বোঝাই যাচ্ছে, আসল ঘটনার ফোকাস ঘোরানোর চেষ্টা করা হচ্ছে।’

দুটি ঘটনারই সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার দাবি করেন গত কয়েক বছর ধরে নানা কর্মকাণ্ডে আলোচনায় আসা এই চলচ্চিত্র নায়িকা।

এই বিভাগের আরো নিউজ

পরীমনিকে ধর্ষণচেষ্টা: বোট ক্লাবের ভেতরে দেড় ঘণ্টা কী হয়েছিল?
পরীমনিকে ধর্ষণচেষ্টা: বোট ক্লাবের ভেতরে দেড় ঘণ্টা কী হয়েছিল?
পরীমনিকে ধর্ষণচেষ্টা: বোট ক্লাবের ভেতরে দেড় ঘণ্টা কী হয়েছিল?
পরীমনিকে ধর্ষণচেষ্টা: বোট ক্লাবের ভেতরে দেড় ঘণ্টা কী হয়েছিল?
পরীমনিকে ধর্ষণচেষ্টা: বোট ক্লাবের ভেতরে দেড় ঘণ্টা কী হয়েছিল?
আজকের সর্বশেষ সব খবর